ভারত থেকে নিউজ দাতা মনোয়ার ইমাম।

ভারতের রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে আগামী ২৫,শে, জুন রাস্ট্রপতি নির্বাচনে প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দাখিল করতে চলেছে এন ডি এর প্রার্থী হিসেবে দ্রৌপদী মুমু। তিনি ভারতের এই প্রথম কোন আদিবাসী জনগোষ্ঠীর মহিলা হিসেবে ওড়িশা রাজ্যের নাগরিক হিসেবে মনোনয়ন পত্র দিতে চলেছেন। এর আগে এই আদিবাসী জনগোষ্ঠীর মহিলা নেত্রী ওড়িশা রাজ্যের ২০০০,সাল, থেকে ২০০৪,সাল, পযন্ত বিধায়ক ও গনপরিবহন এবং পশুপালন ও মৎস্য মন্ত্রী হিসেবে কাজ করেন। সেই সাথে ২০০৭,সালে, ওড়িশা রাজ্যের সেরা বিধায়ক নির্বাচিত হন। এবং ২০১৫,সাল, থেকে ২০২১,সাল, পযন্ত ঝাড়খণ্ড রাজ্যের রাজ্যপাল নিযুক্ত হন।

গতকাল যখন বিজেপি ও তার মিত্র জোটের নেতৃত্ব বৈঠক করেন তখন কেউ জানতে পারেন নি যে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী একজন আদিবাসী জনগোষ্ঠীর মহিলা কে রাস্ট্রপতি পদপ্রার্থী হিসেবে খাড়া করতে যাচ্ছে। সবাই মিলে ওড়িশা রাজ্যের ময়ূরভঞ্জ জেলার রায়রঙ্গপুরের বাসিন্দা আদিবাসী জনগোষ্ঠীর মহিলা নেত্রী দ্রৌপদী মুমু কে পরবর্তী রাস্ট্রপতি নির্বাচনে অংশগ্রহণ করার জন্য সিদ্ধান্ত নেন। এবং তার নাম ঘোষণা করেন ভারতের বিজেপি সভাপতি জেপি নাড্ডা। এবং আগামী নির্বাচনে রাস্ট্রপতি পদপ্রার্থী হিসেবে দ্রৌপদী মুমু কে সমর্থন করার সিদ্ধান্ত নেন বি জে ডি নেতা এবং ওড়িশা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী নবীন পাট্টা নায়ক। দ্রৌপদী মুমু কে লড়াই করতে হবে ভারতের বিরোধী দলের অন্যতম রাস্ট্রপতি পদপ্রার্থী শ্রী যশবন্ত সিনহার সাথে। তবে এখন পাল্লা ভারী এন ডি এ রাস্ট্রপতি পদপ্রার্থী দ্রৌপদী মুমু দিকে। আগামী নির্বাচনে কে ভারতের রাষ্ট্রপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করতে যাচ্ছে তার জন্য কিছুদিন অপেক্ষা করতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.