মোহাম্মদ এরশাদুল হক লোহাগাড়া (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধিঃ

চট্টগ্রামের লোহাগাড়ায় ফাতেমা (বেগম ২০) নামে এক গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে শনিবার ( ২১ আগস্ট ) বেলা ১২টায় উপজেলার সদর ইউনিয়নের সুখছড়িকুল থেকে তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য স্বামী মোহাম্মদ শরীফকে (৩০) আটক করেছে পুলিশ লোহাগাড়া থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি)মোহাম্মদ জাকের হোসাইন মাহমুদ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

জানা যায়, আড়াই বছর আগে চুনতি ইউনিয়নের সাতঘর এলাকার ফাতেমা বেগম ও সদর ইউনিয়নের সুখছড়িকুল এলাকার ওমান প্রবাসীর মোহাম্মদ শরীফের বিয়ে হয় ঘটনার দিন রাতে স্বামী-স্ত্রী তাদের ঘরে একসঙ্গে ঘুমিয়ে পড়ে শনিবার সকালে স্ত্রীর মরদেহ পাওয়া যায়। পরে খবর পেয়ে লোহাগাড়া থানা পুলিশ লাশ উদ্ধার করে নিহত গৃহবধূর গলায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

তবে নিহত গৃহবধূর পিতা মোহাম্মদ ইসমাইলের দাবি তার মেয়েকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে। কি অপরাধে আমার মেয়েকে হত্যা করেছে সেটা বলতে পারছি না।

তিনি আরো বলেন, সকাল ৭টার দিকে আমার স্ত্রীকে শ্বশুরবাড়ির লোকজন ফোন করে মৃত্যুর বিষয়টি জানান।

সাতকানিয়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জাকারিয়া রহমান জিকু বলেন, লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য চমেকে প্রেরণ করা হয়েছে। নিহতের গলায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে।

তিনি আরো বলেন, এটি হত্যাকাণ্ড নাকি আত্মহত্যা তা ময়নাতদন্ত শেষে জানা যাবে। স্বামীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়ছে। এ ব্যাপারে আমরা আইনগত পদক্ষেপ নিচ্ছি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *