ইন্দ্রজিৎ টিকাদার বটিয়াঘাটা প্রতিনিধি ঃ
খুলনা জেলা পরিষদের প্রশাসক ও জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা শেখ হারুনুর রশীদ বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাহসী পদক্ষেপ, দেশত্ববোধ, ভালোবাসা আর আত্ম বিশ্বাসের কারনে স্বাধীনতা পরবর্তী সর্ববৃহৎ প্রকল্পটিই হলো পদ্মা সেতু।যেটি নির্মান করে তিঁনি শুধু দেশ নয় গোটা বিশ্ববাসীর কাছে প্রশংসিত হয়েছেন। তিনি গতকাল মঙ্গলবার বেলা তিনটায় বটিয়াঘাটা উপজেলা আ’লীগের উদ্যোগে স্বপ্নের পদ্মা সেতুর শুভ উদ্বোধন অনুষ্ঠান সফল করার লক্ষ্যে এক বিশেষ বর্ধিত সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এ কথা বলেন। স্থানীয় উপজেলা অডিটরিয়ামে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান আলোচক জাতীয় সংসদের হুইপ পঞ্চানন বিশ্বাস এমপি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার মানেই হলো উন্নয়ন।পদ্না সেতু তার অন্যতম উদাহরণ।

এটি নির্মানে শুধুই ঢাকা যাতায়াতে সুফল বয়ে আনবে না।এর ফলে দক্ষিণ – পশ্চিমাঞ্চল সহ সকল স্হল বন্দরে ব্যাবসা – বানিজ্যের প্রসার ঘটবে।সভায় প্রধান বক্তা জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এ্যাড. সুজিত অধিকারী বলেছেন, দক্ষিণ – পশ্চিমাঞ্চলীয় ২১ টি জেলার স্বপ্নের পদ্মা সেতু এখন আর যোজন যোজন দূরে নয়।সকল ষড়যন্ত্র আর চক্রান্তের জাল ছিন্ন করে আগামী ২৫ জুন জননেত্রী শেখ হাসিনা উদ্ভোধন করে যানবাহন চলাচলের দ্বার উন্মোচন করবেন।উপজেলা আ’লীগের সভাপতি আশরাফুল আলম খানের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক দিলীপ হালদারের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা আ’লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি বি এম সালাম, সহ-সভাপতি এ্যাড. নিমাই চন্দ্র রায়, জেলা আ’লীগের যুগ্ম- সাধারণ সম্পাদক মোঃ কামরুজ্জামান জামাল, আইন বিষয়ক সম্পাদক এ্যাড.নবকুমার চক্রবর্তী, জেলা আ’লীগের সদস্য বীরমুক্তিযোদ্ধা মনোরঞ্জন মন্ডল,

মোঃ জামিল খান, শিউলি সরোয়ার,বুলু রায় গাঙ্গুলী, উপজেলা আ’লীগের সহ-সভাপতি অধ্যাঃ মোঃ ফিরোজুর রহমান,প্রদীপ কুমার বিশ্বাস, মৃন্ময় পাল , মোহাম্মদ আলী মীর,যুগ্ম-সম্পাদক পলাশ রায়, সাংগঠনিক সম্পাদক অনুপ গোলদার, রাজ কুমার রায়, দেব প্রসাদ বিশ্বাস, মোসারফ হোসেন মুসা,গোবিন্দ মল্লিক,বিধান রায়,পল্লব বিশ্বাস রিটু, আলহাজ্ব আসলাম তালুকদার,জেলা যুবলীগ নেতা সরদার জাকির হোসেন,জলিল তালুকদার,ইন্জিঃ মাহফুজুর রহমান,মোঃ রাসেল কবির, বিএম মাসুদ রানা, অরিন্দম গোলদার,জি এম মিলন গোলদার, মোঃ ওয়াহিদুর রহমান, ইউনিয়ন আ’লীগের সভাপতি যথাক্রমে নারায়ন চন্দ্র সরকার,

মোঃ আবুল কালাম আজাদ, মোঃ জাকির হোসেন লিটু, মোঃ হাদি-উজ্জামান হাদী, পংকজ বিশ্বাস, মোঃ মশিবুর রহমান, মোঃ খলিলুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক যথাক্রমে মোঃ মোল্লা মিজানুর রহমান বাবু,মানস পাল, তুলসী দাস বিশ্বাস, রবীন্দ্রনাথ সরকার, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি পারভেজ আলম হাওলাদার, সাধারণ সম্পাদক মোঃ ইমরান হোসেন ইমু, উপজেলা বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি ইন্দ্রজিৎ টিকাদার, অধ্যাঃ মনোরঞ্জন মন্ডল, সুধাংশু রায়, বিধান হালদার, তপতী রাণী বিশ্বাস,শিউলি মিস্ত্রী, নীলা মিস্ত্রী,রত্না অধিকারী, যুবলীগ নেতা বিপ্রদাস টিকাদার কার্তিক, সেচ্চাসেবকলীগ নেতা মিজানুর রহমান মিজান, সুরজিৎ মন্ডল, কৃষকলীগ নেতা গৌর দাশ ঢালী, মোস্তাফিজুর রহমান প্রমূখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.