কলকাতা থেকে নিউজ দাতা মনোয়ার ইমাম।

আজ পশ্চিম বাংলার ব্যারাকপুরের স্বামী বিবেকানন্দ পুলিশ একাডেমিতে, ২০১৯,,সালের, রাজ্যের সেরা থানার পুরস্কার অর্জন লাভ করেন। আজ পশ্চিম বাংলার রাজ্যে পুলিশের পক্ষ থেকে এই পুরস্কার তুলে ধরা হয় গোসাবা থানার ভারপ্রাপ্ত ওসি শ্রী সৌমেন বিশ্বাস কে।

তুমুল প্রতিকূলতার মধ্যে দিয়ে একেবারে গভীর সমুদ্র ও নদী নালা ভরা ম্যানগ্রোভ অরণ্য লাগোয়া দক্ষিণ চব্বিশ পরগনা জেলার বারুইপুর জেলা পুলিশ অধীনে এই গোসাবা থানা। একদিকে কোভিড করোনা পরিস্তিতিতে সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছে যাওয়া, সেই সঙ্গে তাদের কে সচেতনতা বৃদ্ধি করা কোভিড করোনা ভাইরাস নিয়ে।

একই সাথে পর পর আমপান ঘূর্ণিঝড়ের ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের পাশে প্রতিকূল পরিবেশে সাধারণ মানুষের কাছে থেকে তাদের সাহায্য করা। সেই সঙ্গে চোরাচালান রুখতে এবং পৃথিবীর একমাত্র ম্যানগ্রোভ বনাঞ্চল কে বাচাতে অক্লান্ত পরিশ্রম করে গেছেন এই থানার অধীনস্থ অফিসার ও পুলিশ কর্মকর্তারা।

শুধুমাত্র তাই নয় বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ করতে এই থানার ভুমিকা গোরব লাভ করেছে। যখন আমপান ঘূর্ণিঝড়ের ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের কাছে কেউ পৌঁছে যেতে পারেননি তখন গভীর সুন্দর বনের এই থানার অফিসার ও কর্মকর্তারা বাধভাঙা ও বন্যা এবং প্রবল ঘূর্ণিঝড়ের ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের কাছে ত্রাণ সামগ্রী নিয়ে তাদের পাশে দাড়িয়েছে।

সাধারণ মানুষের কাছে যখন মাথার উপর বৃষ্টি রোখার ছাউনি নেই তখন তারা বারুইপুর জেলা পুলিশের কাছে সাহায্য নিয়ে তাদের মাথার উপর ছাউনির ব্যাবস্থা করছে। রাজনৈতিক হানাহানি ও সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা রুখতে কঠোর পরিশ্রম করেছেন।

তাদের সব ধরনের কাছে সাহায্য করেছিল বারুইপুর জেলা পুলিশের সুপার শ্রী ভুপেশ তেওয়ারী আই পি এস এবং বারুইপুর জেলা পুলিশ সুপার জোনাল শ্রী ইন্দ্রজিৎ বসু আই পি এস এবং বারুইপুর জেলা পুলিশ মহিলা থানার আই সি শ্রীমতী কাকলী ঘোষ কুন্ডু ও বারুইপুর জেলা পুলিশ এর এস ও জি গোয়েন্দা সংস্থার প্রধান শ্রী সন্দীপ বাবু সহ বারুইপুর জেলা পুলিশের পদস্থ পুলিশ অফিসার। এর আগে বারুইপুর জেলা পুলিশের কাশিপুর থানার আই সি শ্রী প্রদীপ কুমার পাল কে ভারত সরকারের সরাস্ট্র বিভাগ থেকে সেরা পুলিশের জন্য পুরস্কার অর্জন করেন।।

এই নিয়ে পর পর ভারতের সরকারের পক্ষ থেকে ও পশ্চিম পর পর দুই টি পুরস্কার অর্জন করাতে সব জেলা কে টপকে গেল বারুইপুর জেলা পুলিশ।।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *